দুই মাসিকের মধ্যবর্তী সময়ে রক্তপাত

নিউজ ডেস্ক : স্বাভাবিকভাবে মাসিক গড়ে চার দিন স্থায়ী হয় এবং স্বভাবত প্রতি ২৮ দিন পরপর হয় (৭দিন কম বা বেশি)। দুই মাসিকের মধ্যবর্তী সময়ে এবং মাসিকচক্র বন্ধ হয়ে যাওয়ার (menopause)পর রক্তপাত হওয়া অস্বাভাবিক এবং তা বিভিন্ন কারণে হতে পারে, এটা একটি রোগ এবং সাধারণত ক্ষতিকর। ক্যান্সার বা প্রাক-ক্যান্সারের কারণে যোনি থেকে রক্তক্ষরণ হতে পারে।

তাই যে কোন ধরনের অস্বাভাবিক রক্তপাত পরীক্ষা করাটা জরুরী। এবিষয়ে সার্বিক পরমার্শ দিয়েছে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় অবস্ এন্ড গাইনী বিভাগের মেডিকেল অফিসার ডা. নুসরাত আফরীন নীলা।

দুইটা মাসিকের মধ্যেবর্তী সময়ে কিছু রক্তপাত হওয়াকে ovulatory bleeding বা দুই মাসিকের মধ্যবর্তী সময়ে রক্তপাত বলা হয়ে থাকে। সাধারণত Oestrogen হরমোনের তারতম্যের কারণে এই ধরনের রক্তপাত হয়। এজন্য সাধারণত কোন চিকিৎসার প্রয়োজন হয় না।

তবুও যদি বেশি রক্তপাত হয়। পেটে ব্যাথা এবং অস্বস্তি লাগে তাহলে চিকিৎসকের শরণাপন্ন হতে হবে। সাধারণত মাসিকের ১০-১৪ দিন পর ডিম্বাশয় বের হয় এবং Oestrogen হরমোনের তারতম্য হয়ে জরায়ু হতে রক্তপাত হয়। এছাড়াও Endometriosis Adenomyosis stress অথবা অন্যান্য কারণে রক্তপাত হতে পারে। রক্তের রং সাধারণত গোলাপী অথবা brownish-red হয়। রক্তপাত সাধারণত ১২-৭২ ঘন্টার মধ্যে থেমে যায়।

 

(Visited 1 times, 1 visits today)

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

16 − one =